বদলগাছীতে মামলা করে বিপাকে পড়েছে বাদী

বদলগাছী (নওগাঁ) প্রতিনিধি ঃ নওগাঁর বদলগাছীতে থানায় মামলা করে বাদী এখন বিপাকে পড়েছে। মামলা সুত্রে জানা যায় উপজেলার মিঠাপুর ইউপির জগপাড়া গ্রামের শ্রী সরোজ কুমারের ছেলে সৌরভ কুমার গত ৮ সেপ্টেম্বর বিকালে জগপাড়া স্কুলমাঠে ফুটবল খেলার সময় মাঠের পার্শ্বে থাকা একই গ্রামের সুধাংশু চন্দ্র মন্ডলের জমিতে ফুটবলটি যায়। এসময় সুধাংশুর ছেলে অমৃত কুমার ফুটবলটি কেটে ফেলে। ফুটবলটি কেন কাটছে এবিষয়ে জানতে জানতে গেলে পুর্বের পরিকল্পনা মোতাবেক সৌরভকে কিল ঘুষি মারে এবং সৌরভকে হত্যার উদ্দেশ্যে খুরদিয়ে বুকের বাম পাশে আঘাত করে ও লাঠি দিয়ে এলোপাথারী ভাবে মারপিট শুরু করলে সৌরভের চিৎকারে আশে পাশের লোকজন ছুটে আসলে আসামীরা তাদের কেউ বিভিন্ন ভাবে ভয়ভিতি দেখায়ে চলে যায়। এসময় জগপাড়া গ্রামের নয়ন কুমারের স্ত্রী ছবি রানী, বিপুল কুমারের ছেলে অনিক সহ অনেকে সৌরভকে উদ্ধার করে বদলগাছী স্ব্যাস্থ্যকমপ্লেক্রো ভর্তি করে দেয়। এবিষয়ে গত ৯ সেপ্টেম্বর সৌরভের বড় ভাই স্বরুপ কুমার বাদী হয়ে । শ্রী মানিক চন্দ্র এর ছেলে শ্রী অরুপ চন্দ্রমন্ডল (২৩), মৃত দেবেন চন্দ্র্র মন্ডল ছেলে মানিক চন্দ্র মন্ডল (৪৫), মানিক চন্দ্র মন্ডল স্ত্রী শ্রীমতি অনিমা রানী (৪০) সুধাংশু মন্ডলের ছেলে শ্রী অমৃত কুমার মন্ডল (২৫) ৪ জনকে আসামী করে বদলগাছী থানায় একটি মামলা দায়ের করে। মামলা নং-১৪ তারিখ ০৯/০৯/২০ইং। মামলা করার পর থেকে পরিবারটির উপর বিভিন্ন ভাবে ভয়ভিতি ও হুমকি দেওয়া হচ্ছে। এলাকাবাসী বলেন এদের মধ্যে জগপাড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে নাইটর্গাড নিয়োগ নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে টাকা পয়সা নিয়ে বিবাধ চলছিল। মিঠাপুর ইউপি চেয়ারম্যার ফিরোজ হোসেন বলেন ফুটবল খেলা নুমুনা মাত্র আসল ঘটনা হল তাদের জগপাড়া সরকারী প্রথমিক বিদ্যালয়ে পিয়ন নিয়োগ নিয়ে টাকা পয়সার বিষয়ে বিরোধ চলছিল। মামলার তদন্ত কারী কর্মকতা বদলগাছী থানার এসআই আবু শামা বলেন মামলা তদন্ত চলছে এবং আমার ভিকটিম এখনো সুস্থ হয়নি সে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। থানার অফিসার ইনর্চাজ চৌধুরী জোবায়ের আহম্মেদ বলেন, মামলা তদন্তাধীন রয়েছে মেডিকেল রিপোর্ট আসলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

Check Also

উপবৃত্তির টাকা আতœসাতের ঘটনায় ১৬ জনের বিরুদ্ধে মামলা

গাইবান্ধা জেলা প্রতিনিধি: শিক্ষার্থীদের মোবাইল নম্বর পরিবর্তন করে উপবৃত্তির টাকা আতœসাতের অভিযোগে কর্তৃপক্ষ কোনো ব্যবস্থা …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *