‘মোদি সরকারের আমলে ভারত-পাকিস্তান সিরিজ সম্ভব নয়’

গত সাত বছর ধরে দ্বিপাক্ষিক সিরিজে মুখোমুখি হয় না প্রতিবেশী দেশ দুটি। বহুল আকাঙ্ক্ষিত সিরিজ দেখার স্বাদ সহসাই দর্শকদের মিটছে না বলে মত শহীদ আফ্রিদির। সাবেক পাকিস্তান অধিনায়ক মনে করেন নরেদ্র মোদি সরকারের আমলে পাক-ভারত দ্বিপাক্ষিক সিরিজ অসম্ভব।

সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে আফ্রিদি জানান, পাকিস্তান সরকার সবসময় তৈরি কিন্তু ভারতের বর্তমান সরকার যতদিন শাসনে আছে ততদিন ভারত-পাকিস্তান দ্বিপাক্ষিক সিরিজ অনুষ্ঠিত হওয়া কোনওভাবেই সম্ভব নয়। ইন্ডিয়ান প্রিমিয়র লিগ বিশ্ব ক্রিকেটের অন্যতম বড় একটা ব্র্যান্ড। আর সেই ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেট লিগে খেলতে না পারায় পাকিস্তানি ক্রিকেটাররা একটা বড় সুযোগ থেকে বঞ্চিত হচ্ছেন বলেও জানালেন সাবেক এই পাকিস্তানি অধিনায়ক।

২০১২-১৩ মৌসুমে শেষবার ভারতের মাটিতে হয়েছে দু’দলের দ্বিপাক্ষিক সিরিজ। দুই ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজ ১-১ সমতায় শেষ হলেও ওয়ানডে সিরিজ ২-১ ব্যবধানে জিতে নেয় পাকিস্তান। ভারত শেষবার পাকিস্তান সফর করেছে ২০০৬ সালে। গত ফেব্রুয়ারিতেও একবার নরেন্দ্র মোদির সমালোচনা করেছিলেন আফ্রিদি।

তখনও আফ্রিদি ভারত-পাকিস্তানের ক্রিকেটীয় সম্পর্ক নষ্টের জন্য দায়ী করেন নরেন্দ্র মোদিকে।

আফ্রিদি বলেন, ‘আমি যে পরিমাণ ভালবাসা পেয়েছি সেটাকে সব সময় সম্মান করি। ভারতে ক্রিকেট খেলা আমি দারুণ উপভোগ করেছি। এখনো সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভারতীয় সমর্থকদের মেসেজ পাই। উত্তরও দেয়ার চেষ্টা করি।’

উল্লেখ্য, দীর্ঘ প্রতীক্ষার পর গত ১৯ সেপ্টেম্বর সংযুক্ত আরও আমিরাতে শুরু হয়েছে ত্রয়োদশ আইপিএলের আসর। দর্শকহীন আবহে, ভিন্ন পরিমন্ডলে শুরু হলেও টুর্নামেন্ট নিয়ে উন্মাদনার কোনও কমতি নেই। এক সপ্তাহের মধ্যেই সুপার-ওভার, রেকর্ড শতরানের সাক্ষী থেকেছে কোটিপতি এই লিগ।

Check Also

৩৬ দল, গ্রুপ পর্ব নেই, বৃহস্পতিবারে ম্যাচ… আর কী পাল্টালো চ্যাম্পিয়নস লিগে?

গত শুক্রবার উয়েফা প্রতিযোগিতা কমিটির প্রস্তাবনা পাঠানো পরপরই নিশ্চিত হয়ে গিয়েছিল বড় পরিবর্তন আসছে চ্যাম্পিয়নস …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *