ভারতের পর পাকিস্তানেও নিষিদ্ধ হলো ‘টিকটক’

ভারতের পর এবার পাকিস্তানেও ব্যান করা হল জনপ্রিয় চীনা ভিডিও-শেয়ারিং অ্যাপ ‘টিকটক’। শুক্রবার এক বিবৃতি দিয়ে এ নিষেধাজ্ঞার কথা জানিয়েছে পাকিস্তানের টেলিযোগাযোগ কর্তৃপক্ষ।

সংবাদমাধ্যম রয়টার্সের প্রতিবেদন অনুযায়ী বিবৃতিতে বলা হয়েছে যে, ভিডিও শেয়ারিং অ্যাপ টিকটকের অনৈতিক ও কুরুচিপূর্ণ বিষয়বস্তুর বিরুদ্ধে সমাজের বিভিন্ন অংশের মানুষের নানা অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে পাকিস্তান টেলিযোগাযোগ কর্তৃপক্ষ (পিটিএ) দেশে অ্যাপটি নিষিদ্ধ করার জন্য নির্দেশনা জারি করেছে।

পিটিএ অর্থাৎ পাকিস্তানের টেলিকমিউনিকেশন অথোরিটি তাদের বিবৃতিতে আরো জানিয়েছে, ‘টিকটক’কে নোটিশ পাঠানোর পর ‘যথেষ্ট সময়’ দেয়া হয়েছিল। শুধু তাই নয়, বেশ কিছু কন্টেন্ট তুলে নিয়ে, পাকিস্তানে কন্টেন্ট সংক্রান্ত নতুন নিয়ম করার অনুরোধও জানিয়েছিল পাকিস্তানের টেলিকমিউনিকেশন অথোরিটি। তবে ‘টিকটক’ সেই নিয়মাবলীর কিছুই পালন করেনি। সে কারণে ‘টিকটক’ বন্ধ করতে বাধ্য হয় ইমরান খানের সরকার।

উল্লেখ্য, চীন সীমান্তে উত্তেজনার সময় জাতীয় নিরাপত্তা হুমকি হিসেবে অভিহিত করে গত জুনে টিকটকসহ ৫৯টি অ্যাপ নিষিদ্ধ করেছিল ভারত। যার বেশিরভাগই চীনা। যুক্তরাষ্ট্রও একই অভিযোগ তুলে দেশে টিকটক নিষিদ্ধ করে। শুধু মার্কিন মালিকানায় গেলে টিকটক যুক্তরাষ্ট্রে কার্যক্রম চালাতে পারবে বলে জানায় ট্রাম্প প্রশাসন।

Check Also

ভূমধ্যসাগরে নৌকাডুবে ১৭ বাংলাদেশি নিহত

লিবিয়া থেকে ইতালি যাওয়ার পথে ভূমধ্যসাগরে নৌকা ডুবে কমপক্ষে ১৭ বাংলাদেশির মৃত্যু হয়েছে। এছাড়া জীবিত …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *