অভয়নগরে মশিয়াহাটীতে ৩ বছরেও ব্রিজের সংযোগ সড়ক ও পুরাতন ব্রিজ ভাঙ্গা হয়নি : জনদূর্ভোগ চরমে

আর এস রুবেল, অভয়নগর (যশোর) প্রতিনিধি ঃ
যশোরের অভয়নগরের নওয়াপাড়া-মশিয়াহাটী রাস্তায় সীমানা খালের উপর নির্মিত ব্রিজের কাজ শেষ হয়েছে প্রায় ৩ বছর আগে কিন্তু দুই পাশে সংযোগ সড়ক ও পুরাতন ব্রিজ ভাঙ্গার কাজ শেষ হয়নি আজও। যেকারণে ওই ব্রিজের দুই পাশে প্রতিনিয়ত ঘটছে দূর্ঘটনা। দূর্ভোগ পোহাচ্ছে পথচারীরা।নতুন ব্রিজের নিচে পুরাতন ব্রিজের উচ্ছিষ্ট অংশ থাকায় পানি চলাচল ব্যাহত হচ্ছে।একদিকে এ ব্রিজের নিচে পানি বাঁধাগ্রস্ত হওয়ায়, অন্যদিকে ভবদহের গেট দিয়ে পানি না সরায় এ এলাকার মানুষের ঘর-বাড়ি ডুবে আছে।
অভয়নগর উপজেলা প্রকৌশলী অফিস সূত্রে জানা যায়, ২০১৭ সালে জানুয়ারী মাসে নওয়াপাড়া – কুলটিয়া সড়কের মশিয়াহাটীতে সীমানা খালের উপর ১৩ মিটার আরসি ব্রিজ নির্মান কাজ শুরু হয়। ২০১৮ সালের জানুয়ারী মাসে এ ব্রিজের নির্মাণ কাজ শেষ হয়। ব্যয় হয়েছে ৯৪ লাখ ৭৩ হাজার ৩শ’ ৯৫ টাকা। এ ব্রিজের কাজের ঠিকাদার ছিল খুলনার ইউনিভার্সাল কন্সট্রাকশন ফার্ম। এলাকাবাসির অভিযোগ ব্রিজের কাজ শেষ না করে ওই ঠিকাদার বিল উত্তোলন করে চলেগেছে। রাস্তার চেয়ে ব্রিজের উচ্চতা বেশি হওয়ায় জনদূর্ভোগের শেষ নেই। স্থানীয় ব্যবসায়ী সনজিত বিশ^াস জানায়, কায়েকদিন পূর্বে একটি সিমেন্ট বোঝাই ট্রাক উল্টে ব্রিজের পাশে পড়ে যায়। এতে প্রায় লক্ষাধিক টাকার ক্ষতি হয়েছে। এছাড়া ছোট-খাট দূর্ঘটনা তো ঘটছেই প্রতিনিয়ত। এব্যাপারে ইজিবাইক মালিক সমিতির সভাপতি মহসিন সরদার জানায়, ব্রিজের দুই পাশে ১ মিটার দূরে যাত্রী নামিয়ে দিয়ে এ ব্রিজ পার হতে হয়। কোন যানবহন লোড নিয়ে পার হতে গেলে ঘটে দূর্ঘটনা। এব্যাপারে কুলটিয়া ইউপি চেয়ারম্যান ও আ’লীগের সভাপতি শেখর চন্দ্র রায় বলেন, স্থানীয় লোকজনের সহযোগীতায় দুই পাশে বালি দেয়া হয়েছে। কিন্তু রাস্তার চেয়ে ব্রিজেরউচ্চতা বেশি হওয়ায় দূর্ঘটনা ঘটছে। এব্যাপারে ব্রিজের ঠিকাদার ইউনিভার্সাল কন্সট্রাকশন ফার্মের সত্ত¡াধীকারীকাজী আতিকুজ্জামান বলেন, পুরাতন ব্রিজে ভাঙ্গার কন্টাকটার যে ছিল সে ফেল করে চলেগেছে। এব্যাপারে অভয়নগর উপজেলা প্রকৌশলী মো. কামরুল ইসলাম বলেন, পুরাতন ব্রিজের দায়িত্বেযে ঠিকাদার ছিল সে ক্ষতিপূরণ দিয়ে চলেগেছে। এখন পানি কমলে ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে। আর সংযোগ সড়কের ব্যাপারে প্রাক কলন উদ্ধর্তন কর্তৃপক্ষের কাছে পাঠানে হয়েছে। অনুমোদন পেলে করা হবে।

Check Also

উপবৃত্তির টাকা আতœসাতের ঘটনায় ১৬ জনের বিরুদ্ধে মামলা

গাইবান্ধা জেলা প্রতিনিধি: শিক্ষার্থীদের মোবাইল নম্বর পরিবর্তন করে উপবৃত্তির টাকা আতœসাতের অভিযোগে কর্তৃপক্ষ কোনো ব্যবস্থা …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *