বিয়ে না হওয়া যেভাবে ওজন কমালেন তরুণী

২৭ বছর বয়সি পল্লবি গুপ্তা মোটা হওয়ার কারণে অনেক নেতিবাচক মন্তব্য সহ্য করেছেন। বেশি ওজনের কারণে চারপাশে অনেক কথা শুনতে হয়েছে তাকে। এমনকি মোটা হওয়ার কারণে তার জন্য যোগ্য পাত্র খুঁজে পাচ্ছিলেন না তার বাবা-মা। এ অবস্থায় ওজন কমানোর সিদ্ধান্ত নেন তিনি।

ভারতের উত্তর প্রদেশের এই শিক্ষার্থী দশ মাসে ২০ কেজির বেশি ওজন কমিয়েছেন। ৫ ফুট ৫ ইঞ্চি লম্বা পল্লবীর ওজন বেড়ে দাঁড়িয়েছিল ৮৪ কেজি। ওজন কমানোর যাত্রা সম্পর্কে টাইমস অব ইন্ডিয়াকে বিস্তারিত জানিয়েছেন তিনি। ঢাকা টাইমস পাঠকদের জন্য পল্লবীর গল্প তুলে ধরা হলো-

টার্নিং পয়েন্ট: দ্রুত আমার ওজন বেড়ে যায়। আমি আত্মবিশ্বাস হারিয়ে ফেলি। আমার আশপাশের লোকেরা আমাকে এড়িয়ে চলে। এক পর্যায়ে উপযুক্ত পাত্র খুঁজে পাওয়া বাবা-মার জন্য অনেক কঠিন হয়ে যায়। এরপরই আমার জীবনযাত্রায় পরিবর্তন আনার সিদ্ধান্ত নিই।

খাবার:

সকালের নাস্তা: সকালের নাস্তায় আমি সবজি স্যান্ডউইচ খাওয়া পছন্দ করি। এছাড়া ওটস, পোহা এবং এক কাপ চা বা কফিও পছন্দ করি।

দুপুরের খাবার: ঘরে তৈরি সাধারণ খাবারই দুপুরে খেয়েছি। এছাড়া একটি চাপাতি রুটি ও সবজি ডালও খেয়েছি। সন্ধ্যায় গ্রিন টির সঙ্গে সামান্য খাবার খেয়েছি।

রাতের খাবার: রাতে সবসময় হালকা খাবার খেয়েছি। যেমন এক বাটি ফলের সালাদ বা বড় এক বাটি সবজি।

ব্যায়ামের আগের খাবার: ব্ল্যাক কফি

ব্যায়ামের পরের খাবার: শুকনো ফল ও বাদাম

ব্যায়াম: দৈনিক দেড় ঘণ্টা করে ব্যায়াম করেছি। তার মধ্যে প্রথম ৪০ মিনিট কার্ডিও এবং পরের ৩০ মিনিট অন্যান্য ব্যায়াম। এছাড়া দৈনিক যেকোনো একটি ব্যায়াম টার্গেট করে সেটি প্রশিক্ষকের কথা মতো করেছি।

গত বছরের শেষে আমি বিয়ে করেছি। ওজন কমাতে তিনি আমাকে অনেক সহযোগীতা করেছেন। ওজন কমানোর ক্ষেত্রে পরামর্শ হলো যদি আপনি শুরু করেন তাহলে কখনোই এই প্রক্রিয়া বাদ দিবেন না।

Check Also

২০ দেশের ওপর নিষেধাজ্ঞা তুলে নিল সৌদি

ডেস্ক: কুড়িটি দেশের প্রবাসীদের ওপর থেকে ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা তুলে নেওয়ার ঘোষণা দিয়েছে সৌদি আরব। মহামারি …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *