দিনাজপুরের বিরামপুর সাব-রেজিস্টার ও শিক্ষা অফিসে দুবৃর্ত্তের রহস্যজনক চুরি

রেজওয়ান আলী,বিরামপুর (দিনাজপুর) প্রতিনিধি-দিনাজপুরের বিরামপুর উপজেলা চত্বরে রাতের বেলায় সাব-রেজিস্ট্রার অফিসে জানালা ভেঙ্গে দুবৃর্ত্তরা প্রবেশ করে অফিসের কাগজপত্র তছনছ করার ঘটনা ঘটে। উক্ত ঘটনায় অফিসের প্রয়োজনীয় কি কি খোয়া গেছে তা যাচাই বাচাই করা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন কতৃপক্ষ। জানা যায়,বিরামপুর উপজেলা উপজেলা সাব-রেজিস্ট্রি ও অফিস মাধ্যমিক
শিক্ষা অফিস বুধবার যথারীতি বন্ধ করে কর্তৃপক্ষ চলে যান। বুধবার দিবাগত গভীর রাতে দুবৃর্ত্তরা ঐ দু’টি অফিসের পিছনের জানালা ভেঙ্গে ভিতরে প্রবেশ করে গুরুত্বপূর্ণ কাগজপত্র আলমারীসহ সব কিছু তছনছ করে চলে যায়। বৃহস্পতিবার সকালে অফিস খোলার পর জানালা ভাঙ্গার ঘটনা নজরে আসে। শিক্ষা অফিসের নৈশ্য প্রহরী আব্দুল মান্নান জানান,তিনি অফিস পাহারা দিয়ে রাত ৪টার দিকে বাসায় চলে যান। কিন্তু সিসি ক্যামেরার চিত্রে দেখা গেছে রাত ৩টার দিকে তিনজন লোক চলাফেরা করছে। একারণে নৈশ্য প্রহরীর দায়িত্ব পালন নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে। অপর দিকে সাব-রেজিস্ট্রার অফিসের নৈশ্য প্রহরী শফিকুল ইসলামের কাছে জানতে চাইলে কোন কিছু বলতে অপারগতা প্রকাশ করেন। উপজেলা
মাধ্যমিক শিক্ষা অফিস ও উপজেলা সাব-রেজিস্ট্রি অফিস একই ছাদের নীচে
ও দুই অফিসের নৈশ প্রহরী সম্পর্ক দুলা ভাই ও শেলক হওয়াই সবার মাজে
বিভিন্ন প্রশ্ন ঘুর পাক খাচ্ছে।
বিরামপুর সাব-রেজিস্ট্রার অফিসার মোহাম্মদ মাসুদ রানা জানান এমন
ঘটনা এর আগে ঘটেনি তাই চুরির কথা শুনার সাথেই অফিসে এসে দেখি
পিছনের জানালা ভেঙে অফিসে কাগজপত্র তছনছ ও আমার রুমের সব ডয়ার ভেঙে ফেলেছে। দিনাজপুর জেলা রেজিস্ট্রার অফিসার খন্দকার হুমায়ন কবির জানান এমন ঘটনা
শুনার পর বিরামপুর সাব-রেজিস্ট্রার অফিসে এসেছি এই মহুতে কিছু বলতে
পারছি না । তবে পুলিশ প্রশাসনকে এর বিষয়ে অবগত করা হয়েছে।

Check Also

রাজারহাটে জেলা পুলিশের উদ্যোগে ঘর পাচ্ছেন দৃষ্টি প্রতিবন্ধী খলিল

এ.এস.লিমন,রাজারহাট(কুড়িগ্রাম) প্রতিনিধি: তাং: ১৭-০৯-২১ইং। বাংলাদেশ পুলিশ বিভাগের সহযোগিতায় এবং কুড়িগ্রাম জেলা পুলিশ বিভাগের উদ্যোগে ঘর …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *